জাতীয়শিক্ষা

এসএসসি পরীক্ষা শুরু ১৫ সেপ্টেম্বর

গাজীপুর কণ্ঠ ডেস্ক : করোনাভাইরাস ও বন্যার দুর্যোগ কাটিয়ে আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে চলতি বছরের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা।

রবিবার (১৭ জুলাই) সচিবালয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে পরীক্ষার নতুন তারিখ জানান শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

অতিমারি করোনার কারণে নির্ধারিত সময়ের অনেক পর গত ১৯ জুন থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিল এসএসসি ও সমমান পরীক্ষা। কিন্তু জুন মাসে হঠাৎ করেই স্মরণকালের ভয়াবহ বন্যায় সিলেট, সুনামগঞ্জসহ দেশের বিভিন্ন এলাকা তলিয়ে গেলে সরকার ১৭ জুন এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা স্থগিতের ঘোষণা দেয়।

এবার এসএসসি ও দাখিল (সমমান) পরীক্ষায় ২০ লাখ ২১ হাজার ৮৬৮ জন শিক্ষার্থীর অংশ নেওয়ার কথা। এর মধ্যে সাধারণ নয়টি বোর্ডের অধীনে ১৫ লাখ ৯৯ হাজার ৭১১ জন পরীক্ষার্থী। এর বাইরে দাখিলে দুই লাখ ৬৮ হাজার ৪৯৫ জন আর কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি ও দাখিল ভোকেশনালে এক লাখ ৬৩ হাজার ৬৬২ পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় বসবে।

কোন বোর্ডে কত পরীক্ষার্থী

এবছর এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় বসবে সারাদেশের ২৯ হাজার ৫৯১টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ২০ লাখ ২১ হাজার ৮৬৮ জন শিক্ষার্থী। গত বছর তুলনায় এ বছর ৫৫৬টি বেশি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী পরীক্ষায় বসবে। তাদের মধ্যে ছাত্র ১০ লাখ ৯ হাজার ৫১১ জন আর ছাত্রী ১০ লাখ ১২ হাজার ৩৫৭ জন।

এর মধ্যে ৯টি সাধারণ শিক্ষাবোর্ড থেকে ১৭ হাজার ৬৮০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ১৫ লাখ ৯৯ হাজার ৭১১ জন শিক্ষার্থী এসএসসি পরীক্ষা দেবে। দাখিলে অংশগ্রহণ করবে ৯ হাজার ৯৩টি প্রতিষ্ঠানের দুই লাখ ৬৮ হাজার ৪৯৫ জন শিক্ষার্থী।

এসএসসি ভোকেশনালে পরীক্ষায় বসবে ৮২৮টি প্রতিষ্ঠানের এক লাখ ৫৩ হাজার ৬৬২ জন শিক্ষার্থী। এ বছর মোট পরীক্ষা কেন্দ্রের সংখ্যা তিন হাজার ৭৯০টি। যা গতবারের তুলনায় ১১১টি বেশি।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্যমতে, এবছর দেশের ৯টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের মধ্যে ঢাকা বোর্ড থেকে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করবে তিন লাখ ৯৪ হাজার ৯৯৮ জন শিক্ষার্থী, রাজশাহী বোর্ড থেকে এক লাখ ৯৬ হাজার ৬০০ জন শিক্ষার্থী, কুমিল্লা বোর্ড থেকে এক লাখ ৮৮ হাজার ৭১৪ জন শিক্ষার্থী, যশোর বোর্ড থেকে এক লাখ ৭০ হাজার ৩৭৭ জন শিক্ষার্থী, চট্টগ্রাম বোর্ড থেকে এক লাখ ৪৯ হাজার ৭১০ জন শিক্ষার্থী, বরিশাল বোর্ড থেকে ৯৫ হাজার ৯৭৬ জন শিক্ষার্থী, সিলেট বোর্ড থেকে এক লাখ ১৬ হাজার ৪২৭ জন শিক্ষার্থী, দিনাজপুর বোর্ড থেকে এক লাখ ৭৩ হাজার ৯৬১ জন শিক্ষার্থী আর ময়মনসিংহ বোর্ড থেকে এক লাখ ১২ হাজার ৯৪৮ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করবে।

এই ৯টি সাধারণ শিক্ষাবোর্ডের ১৫ লাখ ৯৯ হাজার ৭১১ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে বিজ্ঞান বিভাগের পাঁচ লাখ আট হাজার ২৩৬ জন, মানবিক বিভাগের সাত লাখ ৯০ হাজার ৯১ জন আর ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের তিন লাখ এক হাজার ৩৮৪ জন।

বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, গত বছররের তুলনায় এবছর বিজ্ঞান বিভাগে পরীক্ষার্থী বৃদ্ধি পেয়েছে এক হাজার ৪০৫ জন। গত বছর এই বিভাগে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল পাঁচ লাখ ছয় হাজার ৮৩১ জন।

এ ছাড়াও বিদেশের আটটি কেন্দ্র থেকে পরীক্ষায় বসবে ৩৬৭ জন শিক্ষার্থী। এদের মধ্যে জেদ্দা থেকে ৭০ জন, রিয়াদ থেকে ৪৮ জন, ত্রিপলী থেকে চার জন, দোহা থেকে ৬৮ জন, আবুধাবী থেকে ৫৯ জন, দুবাই থেকে ৩১ জন, বাহরাইন থেকে ৫৩ জন, ওমানের সাহাম থেকে ৩৪ জন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button