বিনোদন

বাহুবলীকে ছাড়িয়ে বিক্রমের নতুন রেকর্ড

গাজীপুর কণ্ঠ, বিনোদন ডেস্ক : যেন রেকর্ড ভাঙার উৎসবে মেতেছে দক্ষিণ ভারত। একটা সিনেমা আসতে না আসতেই শুরু হয় তোলপাড়। এর মধ্যে সর্বশেষ সংযোজন বলা যায় লোকেশ কনগরাজের বিক্রমকে। কমল হাসান, বিজয় সেথুপতি ও ফাহাদ ফাসিল অভিনীত সিনেমাটির টিজার প্রকাশের সময় থেকেই এটি নিয়ে উন্মাদনা ছিল। এবার মুক্তির পর ভেঙে চলেছে একের পর এক রেকর্ড। তামিলনাড়ুতে বাহুবলীর দ্বিতীয় পর্বকে ছাপিয়ে গেল সিনেমাটি। আয়ের দিক থেকে তেলেগু সিনেমার সবচেয়ে বড় রেকর্ড ছিল বাহুবলীর দ্বিতীয় পর্বের। বক্স অফিস রিপোর্ট অনুসারে, বিক্রম এ রাজ্যেই আয় করেছে ১৫০ কোটি রুপি। এর আগে তেলেগু ভাষার সিনেমা বাহুবলী তামিলনাড়ুতে আয় করেছিল ১৪৬ কোটি রুপি।

কমল হাসানের এ সিনেমা বহুদিন ধরেই দর্শকের আগ্রহের কেন্দ্রে ছিল। না থাকার কোনো কারণ নেই। সিনেমাটিতে রয়েছেন তিন স্টার—কমল হাসান, বিজয় সেথুপতি ও ফাহাদ ফাসিল। আগ্রহের কারণ এ তিন অভিনেতা ও সিনেমার মারদাঙ্গা টিজার। কমল হাসানের লুক ও টিজারে তাকে দেখা থেকেই দর্শক আগ্রহ নিয়ে বসেছিল। এ বয়সে এসে কমল হাসানকে ফের কোনো ‘ডন’ হিসেবে দেখতে তাদের আগ্রহের কমতি থাকবে না সেটা জানা কথা। সিনেমা মুক্তির পর সেটা হাতেকলমে প্রমাণিত।

গত শুক্রবারে রমেশ বালা তার অনুমান প্রকাশ করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, ‘দুই ব্লকবাস্টার সিনেমা বিশ্বাস ও বাহুবলীকে টপকে তামিলনাড়ুতে সর্বকালের সেরা আয়কারী হতে পারে বিক্রম।’ শুক্রবার পর্যন্ত সিনেমাটি ১২৫ কোটি রুপি আয় করে এবং শনিবারের মধ্যে ছাপিয়ে যায় বাহুবলীর রেকর্ড। এর আগে থালাপতি বিজয়ের বিস্ট সিনেমার আয় ছিল ১১৯ কোটি রুপি। যশের ভারত কাঁপানো কেজিএফ চ্যাপ্টার টু আয় করেছিল ১০০ কোটি রুপি।

সব মিলিয়ে সিনেমাটির সারা বিশ্বের আয় ৩৫০ কোটি রুপি ছাড়িয়েছে। বহির্বিশ্বে সিনেমাটির আয় প্রায় ১০০ কোটি রুপি। তামিল সিনেমার মধ্যে বিক্রমের অবস্থান দ্বিতীয়। এর চেয়ে এগিয়ে ২০১৮ সালে মুক্তি পাওয়া রজনীকান্তের সিনেমা ২.০ (টু পয়েন্ট ও)। এর আয় ছিল ১৬৫ কোটি রুপি। রজনীকান্তকেও ছাড়িয়ে যেতে পারে কমল হাসানের বিক্রম।

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button