আন্তর্জাতিক

নতুন রাজধানী গড়তে বিদেশী বিনিয়োগ চায় ইন্দোনেশিয়া

গাজীপুর কণ্ঠ, আন্তর্জাতিক ডেস্ক : জাকার্তা থেকে ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী কালিমানতান এলাকায় সরিয়ে নেয়া হচ্ছে, এটি পুরনো খবর। নতুন খবর হলো, নতুন রাজধানী ঘিরে বড় পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে দেশটির সরকার। সেজন্য বিদেশী বিনিয়োগকারীদের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হচ্ছে। যে বিনিয়োগের মাধ্যমে নতুন রাজধানী নুসানতারায় বিভিন্ন অবকাঠামো গড়ে উঠবে। ২০৪৫ সালের মধ্যে এ মেগা প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। খবর বারনামা।

দেশটির বর্তমান রাজধানী জাকার্তার অবস্থান জাভায়, যা দেশের সবচেয়ে ঘনবসতিপূর্ণ দ্বীপ। জনবহুল জাকার্তা দূষিত হয়ে পড়ায় এবং ভূগর্ভস্থ পানির মাত্রাতিরিক্ত উত্তোলনের ফলে আশঙ্কাজনক হারে ডেবে যেতে শুরু করে। এমন পরিস্থিতিতে জাকার্তা থেকে রাজধানী সরিয়ে নেয়ার সিদ্ধান্ত নেয় দেশটির সরকার। নতুন রাজধানীর নাম হবে নুসানতারা, যার অর্থ দ্বীপপুঞ্জ।

চলতি সপ্তাহে নুসানতারা কর্তৃপক্ষের প্রধান ব্যামব্যাং সুশানতোনো জাকার্তা সফররত সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী টনি ব্লেয়ারের সঙ্গে দেখা করেছেন। তার প্রত্যাশা, নতুন রাজধানী গড়তে ইন্দোনেশিয়াকে সহায়তা করবে যুক্তরাজ্য। বিনিয়োগকারীদের জন্য ইন্দোনেশিয়া সরকার নতুন অনেক সুবিধাও দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে। ফলে ব্রিটিশ বিনিয়োগকারীরা নুসানতারায় বিনিয়োগ করতে আগ্রহী হবেন বলেও তাদের প্রত্যাশা।

চলতি বছরের সেপ্টেম্বরে কালিমানতান সফর করতে টনি ব্লেয়ারকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন সুশানতোনো। যাতে করে টনি ব্লেয়ার নিজের চোখেই নুসানতারার অবকাঠামোগত উন্নয়ন দেখে নিতে পারেন।

এছাড়া এ সপ্তাহেই জার্মানির মিউনিখ সফরে যাবেন ইন্দোনেশিয়ার জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আরিফিন তাসরিফ। সেখানে মূলত তিনি জার্মানিভিত্তিক জ্বালানি কোম্পানি সিমেন্স এনার্জি ঘুরে দেখবেন। কারণ নুসানতারায় পুনর্ব্যবহাযোগ্য জ্বালানি খাতের উন্নয়নে কাজ করতে আগ্রহ দেখিয়েছে সিমেন্স এনার্জি। পাশাপাশি শিক্ষাসংক্রান্ত নানা অবকাঠামো নির্মাণেরও প্রস্তাব দিয়েছে তারা।

এছাড়া নেদারল্যান্ডস সরকার ও ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদের নুসানতারায় বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার সমুদ্রসম্পদ ও বিনিয়োগ বিষয়ক মন্ত্রী লুহুত বিনসার। সম্প্রতি নেদারল্যান্ডস ভ্রমণে গিয়ে তিনি এ আহ্বান জানান। সেখানে তিনি দেশটির অবকাঠামো ও পানি ব্যবস্থাপনা মন্ত্রী মার্ক হার্বার্সের সঙ্গেও দেখা করেন এবং নুসানতারায় বিনিয়োগের আহ্বান জানান।

ইন্দোনেশিয়ার জাতীয় উন্নয়ন পরিকল্পনা এজেন্সির তথ্য অনুযায়ী, নুসানতারা মেগা প্রকল্পের জন্য অন্তত সাড়ে ৩ হাজার কোটি ডলারের প্রয়োজন হবে। এর আগে জাপানের সফটব্যাংক গ্রুপ প্রায় ৩ হাজার কোটি ডলার বিনিয়োগের কথা জানিয়েছিল। কিন্তু গত মার্চে তারা সে পরিকল্পনা থেকে নিজেদের প্রত্যাহার করে। সে কারণে এখন বিশ্বের বিভিন্ন দেশের কাছে বিনিয়োগ আহ্বান করছে ইন্দোনেশিয়া সরকার। এরই মধ্যে সৌদি আরব নুসানতারায় বড় বিনিয়োগের ঘোষণা দিয়েছে।

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button