গাজীপুর

কারাগার থেকে কয়েদি পলায়ন: ৬ জনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা, ৬ জন বরখাস্ত

গাজীপুর কণ্ঠ ডেস্ক : কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ থেকে হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আবু বক্কর সিদ্দিক (৩৫) নামে এক কয়েদি পালিয়ে যাওয়ার ঘটনায় প্রাথমিকভাবে ছয়জনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা করা হয়েছে।

এছাড়া আরও ছয়জনকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করেছে কারা কর্তৃপক্ষ।

এই ১২ জনের মধ্যে জেল সুপার, জেলার, ডেপুটি জেলারসহ কারারক্ষীরাও রয়েছেন।

শুক্রবার (০৭ আগস্ট) বিকেল পৌনে ৫টার দিকে গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন আইজি প্রিজন ব্রিগেডিয়ার জেনারেল একেএম মোস্তফা কামাল পাশা।

আইজি প্রিজন জানান, এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হযেছে। ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা হয়েছে। পুলিশ ওই কয়েদির বাড়িতে খোঁজ-খবর নিচ্ছে। কয়েদি পালিয়ে যাওয়ার পর থেকে গাজীপুরে চিরুনি অভিযান পরিচালিত হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (০৬ আগস্ট) সন্ধ্যায় কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ থেকে পালিয়ে যান কয়েদি আবু বক্কর সিদ্দিক (৩৫)।

কাশিমপুর কারাগার সূত্রে জানা গেছে, কয়েদি আবু বকর সিদ্দিক সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার আবাদ চণ্ডীপুরের তেছের আলী গাইনের ছেলে। সে সাতক্ষীরার শ্যামনগর থানার একটি হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় আসামিদের গণনার সময় থেকে কয়েদি আবু বক্কর সিদ্দিককে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। ২০১২ সাল থেকে আবু বকর সিদ্দিক এ কারাগারে বন্দী ছিলেন।

এর আগে ২০১৫ সালের ১৩ মে সন্ধ্যায়ও কয়েদি আবু বকর সিদ্দিক আত্মগোপন করে সেল এলাকায় সেফটি ট্যাংকির ভেতরে লুকিয়ে ছিল। অনেক খোঁজাখুজি শেষে পরদিন তাকে একটি ট্যাংকির ভেতর থেকে উদ্ধার করা হয়েছিল।

 

আরো জানতে…..

কাশিমপুর কারাগার থেকে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত এক কয়েদি ‘উধাও’

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button