গাজীপুর

কালিয়াকৈরে বনের জমি দখল করে বাড়ি নির্মাণ করে রমরমা ব্যবসা!

গাজীপুর কণ্ঠ ডেস্ক : কালিয়াকৈরে সরকারি বন বিভাগের জমির গজারি গাছ কেটে ঘরবাড়ি নির্মাণের হিড়িক উঠেছে। দখলের বিষয়টি বন কর্মকর্তাদের একাধিকবার জানানোর পরও অজ্ঞাত কারণে বন বিভাগ নীরব ভূমিকা পালন করছে।

সরেজমিনে জানা যায়, রাখালিয়াচালা এলাকার এক শ্রেণির দালাল চক্র ও বন বিভাগের সাথে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে সরকারি বনের জমি দখল করে ঘরবাড়ি নির্মাণের রমরমা ব্যবসা করছে।

কালিয়াকৈর রেঞ্জের মৌচাক বিট অফিসের আওতায় রাখালিয়াচালা ঘেসুর টেক একসময় গজারি বনের অরণ্য ছিল কিন্তু সেখানে ঘেসো মিয়া ও তার পরিবার বিভিন্ন লোকের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে জায়গা বিক্রি করে বাড়িঘর তৈরি করে দিচ্ছে অবাধে।

সরেজমিনে দেখা যায়, রাখালিয়াচালা গেসুর টেক এলাকা আমজাদ হোসেনের ২০হাত আধাপাকা ঘর, শুকুর আলীর ২৫হাত টিনশেড ঘর এবং ফাতেমার মা নামের ব্যক্তি ৩০হাত ঘর নির্মাণ করছে।

এছাড়াও মৌচাক সাহেব আলী মার্কেট এলাকায় বাচ্চু ১২ হাত ছাপড়া, উজ্জল ডিমারকেশন ছাড়া ঘরের কাজ করছে, ভান্নারা সাব বিট এর আওতায় আলিফ গার্মেন্টস এলাকায় শাহাদাত বনের জায়গার গজারি গাছ কেটে দোকানঘর এবং সিরাজ ১৪হাত ছাপড়াঘর নির্মাণ করেছে।

মৌচাক বিট কর্মকর্তা মুশফিকুর রহমান মানিক বলেন, রোববার ওই এলাকায় আমরা গিয়েছিলাম আমাদের বন প্রহরী স্টাফদেরকে এলাকাবাসী তোপের মুখে রেখেছে। কয়েক দিন আাগে ভান্নরা এলাকায় আমিসহ আামার স্টাফ মার খেয়েছি, এখানকার মানুষ খারাপ।

এ ব্যাপারে গাজীপুরের সহকারী বন সংরক্ষক সাজেদুল ইসলাম বলেন, অবৈধ দখলদার কাউকে ছাড় দেয়া হবে না।

 

সূত্র: প্রতিদিনের সংবাদ

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Back to top button
Close
Close